স্বামীর বিভিন্ন রূপ

একজন প্রাপ্তবয়স্ক মেয়ে তার উক্ত দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী যখন একজন প্রাপ্তবয়স্ক ছেলেকে বিয়ে করে থাকে তখন ওই ছেলেকে ওই মেয়ের স্বামী বলে সম্বোধন করা হয় ।

এছাড়া একটি সংসারের প্রচলিত নিয়ম অনুযায়ী প্রধানত স্বামী কর্তা হিসেবে তার দায়িত্ব পালন করে থাকে। সেক্ষেত্রে তার একাধিক স্ত্রী থাকলে সকল স্ত্রীগণের উপর স্বামীর অধিকার অবশ্যই অব্যাহত  থাকবে। 

স্বামীর বিভিন্ন রূপ

স্বামীর বিভিন্ন রূপ-একজন পুরুষ মানুষ প্রধানত স্বামী হয়ে থাকে সেক্ষেত্রে যদি তার একটিমাত্র স্ত্রী থাকে এবং সেই স্ত্রী মারা যায় তাকে বলা হয়  বিপত্নীক পুরুষ। এছাড়া স্বামীদেরকে নিয়ে আরো বিভিন্ন স্তরে ভাগ করা হয়েছে যার নিম্নরূপ নিচে উপস্থাপন করলাম।

একগামী ব্যবস্থায়

 বৈবাহিক জীবন ব্যবস্থায় শুধুমাত্র একজন স্বামী এবং তার একজন স্ত্রী থাকবে এটাই হচ্ছে একগামী ব্যবস্থা।

বহুগামী ব্যবস্থায়

বৈবাহিক জীবন সূত্রে একজন পুরুষের একাধিক স্ত্রী থাকতে পারে তখন তাকে বহুগামী ব্যবস্থায বলে। 

বিষমকামী বিবাহ

একটি পরিবারের সাধারণত একজন পুরুষ মানুষ অর্থাৎ স্বামী প্রধান হয়ে থাকে এবং ওই পরিবারের পুরুষ একজন উপার্জনক্ষম ব্যক্তি হতে পারে। 

সন্ত্রাসী স্বামী

বিবাহসূত্রে একজন মেয়ের বিয়ে হয়ে গেলে তখন তার দায়িত্বভার সাধারণত তার স্বামী নিয়ে থাকে। সে ক্ষেত্রে তার ঐ স্বামীর বিভিন্ন কার্যাবলী তার ভিতরে থাকতে পারে।

যেমনঃ খারাপ কোন কাজের উদ্দেশ্য নিয়ে অর্থাৎ সমাজে প্রচলিত বিধি-নিষেধ আইন অনুযায়ী কোনো কাজ না করে , সকল বেআইনি কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে। তখন পরিবার সমাজের দৃষ্টিতে তার স্বামীকে সন্ত্রাসী স্বামী বলে অভিহিত করা হয়। 

নির্যাতনকারী স্বামী

এক্ষেত্রে একজন স্বামী বিভিন্নভাবে তার অপছন্দ মুলক যাবতীয় কার্যাবলী তার স্ত্রীর ওপর বিভিন্ন রূপ ধারণ করে নির্যাতন করে থাকে সে ক্ষেত্রে যে নামটি প্রচলিত হয় তা হচ্ছে নির্যাতনকারী স্বামী।

আদর্শবান স্বামী

এক্ষেত্রে বিবাহসূত্রে একজন স্ত্রীর তার স্বামী বিভিন্ন আদর্শবান কাজগুলি করে সমাজে প্রচলিত অনুযায়ী একজন আদর্শবান ব্যক্তি হয়ে থাকেন সেক্ষেত্রে তাকে আদর্শবান স্বামী বলা হয়ে থাকে। 

দায়িত্ববান স্বামী

একজন স্বামী তার স্ত্রীর সকল ভরণ-পোষণের দায়িত্ব নিয়ে তার সকল সুখ-দুঃখ সুবিধা-অসুবিধা গুলো সমাধান করে তাকে নিয়ে জীবন পরিচালনা করে থাকে তখন সেই স্বামী সমাজে পরিবারে দায়িত্ববান স্বামী হিসেবে পরিচিতি লাভ করে।

বিবাহসূত্রে একজন পুরুষ এর কাছ থেকে কোনো কারণে যদি একজন নারী আইনগত অপ মাধ্যমে আলাদা হয়ে যায় তবে সেক্ষেত্রে ওই স্বামীকে ওই মেয়ের জন্য প্রাক্তন স্বামী হিসেবে বিবেচিত হয়।

বর্তমান তথ্য প্রযুক্তির যুগে মেয়েরা অনেক এগিয়ে সেক্ষেত্রে বিবাহসূত্রে একজন স্বামীর চেয়ে যদি তার স্ত্রী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অর্থ উপার্জনের জন্য সার্ভিস দিয়ে থাকে সে ক্ষেত্রে সকল দায়িত্ব বহন করে থাকে একজন স্ত্রী তখন তাকে বিভিন্ন নামে ডাকা হয়ে থাকে। Refarens-sportsnet24

মায়ের হাত ধরা পিক

আই মিস ইউ বাবা,বিশ্বসেরা বার্তা এবং কবিতা / I Miss You Papa

স্বামী স্ত্রী একে অপরের দায়িত্ব কি

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *