বিদায় হজের ভাষণ এবং আরো মহা মূল্যবান কথা

বিদায় হজের ভাষণ এবং আরো মহামূল্যবান কিছু বাণী আমাদের মুসলমান ধর্মের প্রিয় নবী তথা মানব জাতি কুলের শ্রেষ্ঠ মানুষ হযরত মাওলানা মোহাম্মদ সাঃ বলেছেন, এই পৃথিবী সৃষ্টি হওয়ার পর পৃথিবীতে সৃষ্টিকর্তা আঠারো হাজার মাখলুকাত সৃষ্টি করে প্রেরণ করেছেন। এবং সকল সৃষ্টির সেরা জীব মানুষকে আখ্যায়িত করেছেন।

আর উক্ত মানবজাতির জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত সকল কার্যাবলীর সঠিক হিসাব নিকাশ মৃত্যুর পরে নেওয়া হবে। উক্ত বিষয়ের উপর বিদায় হজের সেই মূল্যবান কথাগুলো মুসলমান ধর্মের মানুষ, অন্য ধর্মের মানুষ কখনোই তা ভুলতে পারবে না। 

যে ভাষণ এর মধ্যে ছিল কীভাবে একজন মানুষ সত্যিকার অর্থে মানুষের মতো মানুষ হয়। কিভাবে জীবন যাপন করবে। কিভাবে দেশ জাতির সম্মান রক্ষা করে ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠা করবে। এবং একজন মানুষ আরেকজন মানুষকে সম্মান এর দৃষ্টিকোণ থেকে সকল সময় সহযোগিতা  করে থাকে।

এছাড়া বিদায় হজের ভাষণ এর সারমর্ম একটি। পৃথিবীতে মানুষ জন্মগ্রহণ করে সকল সময় সকল ক্ষেত্রে যেন সৃষ্টিকর্তার সকল আদেশ নিষেধ মেনে চলে তার গোলামী করে উক্ত বিদায় হজের ভাষণ ছিল। এছাড়া ইসলাম ধর্মের শ্রেষ্ঠ মানুষ মহানবী সাঃ আরো বলেন,

সৃষ্টিকর্তার এবাদত বন্দেগী তথা সকল প্রকার নিয়ম-নীতি মেনে চলবে না তাদের জন্য রয়েছে মৃত্যুর পর ভয়ংকর জাহান্নামের শাস্তি। যে শাস্তি সম্পর্কে সৃষ্টিকর্তা কিছু কিছু ক্ষেত্রে নজির দেখিয়ে থাকেন। যা সকল মানুষ সেখান থেকে তাদের জীবনের সর্বোচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করে সঠিক পথে চলে।

আর যদি পবিত্র আল-কুরআনের বানী অনুসরণ করে প্রত্যেকটি মানুষ তাদের জীবনযাপন করে মৃত্যুর পরে রয়েছে সর্বোচ্চ সুসংবাদ। অর্থাৎ তারা চিরকাল জান্নাতে বসবাস করবে। অর্থাৎ ইসলাম ধর্মের সকল নিয়ম নীতি অনুসরণ করে কিভাবে জীবন যাপন করবে।

এবং মৃত্যুর পরে কিভাবে সর্বোচ্চ শান্তি লাভ করবে। সকল বিষয়ে দিকনির্দেশনা ছিল বিদায় হজের ভাষণ। এই পৃথিবীতে অসংখ্য শ্রেষ্ঠ মানুষগুলো জন্মগ্রহণ করে আবার মৃত্যুবরণ করেছে। এই জন্ম-মৃত্যুর একজন সৃষ্টিকর্তা রয়েছেন। তার অনুসারী হয়ে প্রতিটি মানুষকে বারবার হুঁশিয়ার করে দিয়ে,

সঠিক পথে চলার আহ্বান জানানো হয়েছে। তবুও কিছু কিছু ক্ষেত্রে উপরে উল্লেখিত ব্যাখ্যার বিপরীত মতামত পোষণ করে তারা এই পৃথিবীর বুকে বিভিন্ন রকম বিশৃংখলা সৃষ্টি করে। সকল মানুষের মধ্যে অশান্তি সৃষ্টি করে বেড়ায়। তাদের জন্য সেই বিদায় হজের ভাষণ উল্লেখ করা হয়েছিল  Refarens-sportsnet24

পৃথিবীর একমাত্র ইহুদি রাষ্ট্র ইজরাইল সম্পর্কে কিছু ভয়ঙ্কর আজব ও অজানা তথ্য

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *